২৫৬১ বুদ্ধাব্দ ২৬ অগ্রহায়ণ ১৪২৪ বঙ্গাব্দ রবিবার, ১০ ডিসেম্বর ২০১৭ইংরেজী
Showers

24°C

Chittagong

Showers

Humidity: 94%

Wind: 22.53 km/h

  • 11 Dec 2017

    Rain 26°C 22°C

  • 12 Dec 2017

    Partly Cloudy 27°C 20°C

  • সেই খানেরই গলদ, যেখানে সততা নেই। টাকা পয়সার দিকে নজর দিলে কাজের নেশা নষ্ঠ হয়ে যায়। টাকা পয়সা বড় কথা নয়, কাজ চাই।

    মহাসংঘনায়ক শ্রীসদ্ধর্মভাণক বিশুদ্ধানন্দ

  • আমাদের সমাজে যে এখনো কোন বড় কোন প্রতিভার জন্ম সম্ভব হচ্ছে না, তার কারণ পরশ্রীকাতরতা। আমরা গুণের কদর করি খুব কম। কিন্তু মন্দটাকে সগর্বে প্রচার করে বেড়াতে পারি।

    মহাসংঘনায়ক শ্রীসদ্ধর্মভাণক বিশুদ্ধানন্দ মহাথের

  • যুদ্ধ সভ্যতাকে ধ্বংস করে এবং শান্তি বিশ্বকে সুন্দর করে । যুদ্ধ মানুষকে অমানুষ করিয়ে দেয়, যুদ্ধ ছিনিয়ে নেয় প্রেম-ভালবাসা এবং যুদ্ধের আগুনে আত্নহুতি দিতে হয় বহু প্রাণের । যুদ্ধকে মনে প্রাণে ঘৃণা করা উচিৎ।

    মহাসংঘনায়ক শ্রীসদ্ধর্মভাণক বিশুদ্ধানন্দ মহাথের

  • আপনি যেমন মহৎ চিন্তা করেন কাজেও সেইরুপ হউন, আপনার কথাকে কাজের সাথে এবং কাজকে কথার সাথে সামঞ্জস্যপূর্ণ করে তুলুন।
    মহাসংঘনায়ক শ্রীসদ্ধর্মভাণক বিশুদ্ধানন্দ

বৌদ্ধ দর্শন

নির্বাণ

নির্বাণ ভগবান গৌতম বুদ্ধের প্রচারিত মতবাদ আমাদের কাছে বৌদ্ধ ধর্ম নামে পরিচিত। সাধারণ ধর্ম বলতে যে সংজ্ঞা বা সংস্কার আমাদের মনকে অভিভূত করে এই মতবাদ আসলে ধর্ম নয়, ধর্ম থেকে উত্তীর্ণ হওয়ার পন্থা। প্রাকৃতিক দৃষ্টিকোণ থেকে ধর্ম অর্থে এই স্বভাব বা সংস্কার বিজ্ঞান বা অভিজ্ঞতা সৃষ্টির মাধ্যমে সৃষ্টি প্রক্রিয়ায় সহয়তা করে মানুষ সমাজকে কেন্দ্র করে সৃষ্টি প্রক্রিয়াকে সাধারণত কোন সার্বভৌম শক্তির এখতিয়ার বলে মনে করা হয়। এই মতবাদ পৃথিবী সাধারণত…

গৃহী সমাজে বুদ্ধের অহিংসা নীতি

গৃহী সমাজে বুদ্ধের অহিংসা নীতি সর্বদর্শী ভগবান বুদ্ধ সুর্দীঘ পয়তাল্লিশ (৪৫) বছর ব্যাপি মানব সহ সকল প্রাণীর মঙ্গলের জন্য অমৃতময় বাণী প্রচার করেছেন।সেসব বাণী গুলি যারা পালন করে জীবন যাপন করেন তারা বর্তমান জীবনে সুখ শান্তি লাভ করতে পারে এবং মৃত্যুর পর সুগতি প্রাপ্ত হয় । ভগবান বুদ্ধের অন্যতম বাণী হল অহিংসা পরম ধর্ম অর্থাৎ সকল জীব তথা সকল মানবের প্রতি সমভাবে মৈত্রী প্রদর্শন করা। হিংসা পরিহার করে অহিংসাময় জীবন…

ধর্ম কোথায় ?

ধর্ম কোথায় ? এখন একটা কথা প্রায়ই শোনা যায়, বর্তমান সময়ে ধর্ম বলতে কিছু নেই? ধর্ম থাকলে এত অধর্ম হয় কি করে? সত্যিই কি তাই? ধর্ম কি নেই? ধর্ম কি দেখা যায় নাকি? আমি ধার্মিক ---- এটা দেখানোর জন্য একটি মহাসংঘদান করলাম, হাজার লোককে খাওয়ালাম, এতে কি আমার সত্যিকার অর্থে ধর্ম করা হবে? ধর্ম সব জায়গায় আছে, ছিল এবং থাকবে। পৃথিবীতে খারাপ মানুষ আছে বলেই ভালো মানুষের কদর, ঠিক তেমনি…

বাঙালি শব্দের আবিষ্কারক কবি ভুসুকু

বাঙালি শব্দের আবিষ্কারক কবি ভুসুকু       চর্যাপদের সিদ্ধপুরুষ কবি ভুসুকু ‘বাঙালি’ শব্দের আবিষ্কারক ছিলেন। চর্যাপদের বাঙালি এনলাইটেনমেন্টের যুগে বুদ্ধাব্দই বঙ্গাব্দ ছিল এবং ‘আজি ভুসুকু বঙ্গালী ভইলী (ভুসুকু আজ আলোকপ্রাপ্ত সিদ্ধপুরুষ বা বাঙালি হলেন)” থেকে ঐতিহাসিক ‘বাঙালি’ শব্দের অভূতপূর্ব সংযোজন হয়েছিল।  চর্যাপদের (দি বুক অব এনলাইটেনমেন্ট) ৪৯ নম্বর কবিতায় সর্বপ্রথম ‘বাঙালি শব্দ’ মহাকবি ভুসুকু কর্তৃক আবিষ্কৃত হল। পূজনীয় ব্যক্তির প্রতি সন্মান প্রদর্শন বাঞ্ছনীয়। সম্প্রতি টরন্টোয় ‘সাপ্তাহিক আজকালে পৃষ্ঠা ১৩, ফেব্র“য়ারী…

কর্মবিপাক বড়ই ভয়ংকর

কর্মবিপাক বড়ই ভয়ংকর (শুভ বুদ্ধ পূর্ণিমার আলোকে নিজেদের সচেতন করার লক্ষ্যে তথাগত মহাকারুণিক বুদ্ধের ১২টি কর্মবিপাক নিয়েই আলোচনা) কর্ম ও কর্মফলকে বা কর্মবিপাককে বিশ্বাস বা শ্রদ্ধা করে বৌদ্ধগণ অকুশল বা পাপকর্ম থেকে বিরত থাকেন এবং কুশল বা পুণ্য কর্ম সম্পাদন করেন। যার জন্য তিনি জন্ম-জন্মান্তর সেই কর্মের ফল অবশ্যই ভোগ করবেন।মহাকরুনিক তথাগত সম্যক সম্বুদ্ধ যিনি দশটা পারমী, দশটা উপ-পারমী, দশটা পরমার্থ পারমী পূরণ করার পরেও বুদ্ধত্ব লাভ করার পরে তাঁকেও…

বুদ্ধ পূর্ণিমার বৈশিষ্ট্য ও মাহাত্ম্য

বুদ্ধ পূর্ণিমার বৈশিষ্ট্য ও মাহাত্ম্য বৈশাখী পূর্ণিমা তথা বুদ্ধ পূর্ণিমা মহামানব গৌতম সম্যক সম্বুদ্ধের মহাজীবনের প্রধান তিনটি বৈশিষ্ট্যমণ্ডিত ও তাৎপর্যময় ঘটনার অবিস্মরণীয় অধ্যায়। জন্ম-জন্মান্তরের সুদীর্ঘ পথ পরিক্রমা আর সাধনায় সর্বশেষ জন্মে এই পৃথিবীতে মানব সন্তান হিসেবে জন্ম পরিগ্রহ, ত্রিবিধ প্রকারে ত্রিশ প্রকার পারমীর পরিপূর্ণতায় সর্বজ্ঞতা জ্ঞান বা বুদ্ধত্ব লাভ এবং ৪৫ বছরব্যাপী দেব-মানব ও অন্যান্য সকল প্রাণির সার্বিক কল্যাণে বিমুক্তি মার্গের অমৃতসুধা বিতরণ করে অনিত্যতার প্রমিত নিয়মে মহাপরিনির্বাণ লাভের ঘটনায়…

বৌদ্ধধর্মে প্রতীত্যসমুৎপাদ

বৌদ্ধধর্মে প্রতীত্যসমুৎপাদ বৌদ্ধধর্মে অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ বিষয় হচ্ছে প্রতীত্যসমুৎপাদ। এই প্রতীত্যসমুৎপাদ শব্দটির বিশ্লেষণ বিভিন্ন জায়গায় বিভিন্নভাবে উক্ত হয়েছে- ক. প্রতীত্য+সম+উপ্পাদ = প্রতীত্যসমুৎপাদ, এক্ষেত্রে ‘প্রতীত্য’ শব্দের অর্থ কারণ যেটি ‘সম’ (যার অর্থ যথার্থ বা উপযুক্ত) এর উপর নির্ভর করে। আর ‘উপ্পাদ’ শব্দের অর্থ হচ্ছে উৎপাদিত বা সংগঠিত। এক্ষেত্রে প্রতীত্যসমুৎপাদ শব্দের অর্থ হচ্ছে কারণ দ্বারা সংগঠিত বা উৎপাদিত। খ. পটিচ্চ = কারণ, কারণ + সমুপ্পাদ = উৎপত্তির সংযোগ সূত্র, সমুপ্পন্ন = উৎপাদিত বা…

চর্যাপদের ধর্ম-দেশনা

চর্যাপদের ধর্ম-দেশনা চর্যাপদ সাধন-সংগীত। হরপ্রসাদ শাস্ত্রী এগুলোকে বৌদ্ধ গান বলেছেন। কিন্তু চর্যাপদ নির্ভেজাল ধর্ম-গীতি নয়। তা’ এক বিশেষ শ্রেনীর বৌদ্ধ সাধন- সংগীত। আলোচ্য সংগীতসমূহকে ’বৌদ্ধ’ শব্দের বিশেষিত করার কারণ- চর্যাগুলো যাঁরা রচনা করেছেন, তাঁরা বৌদ্ধ ঐতিহ্যধারার-ই ধর্মসাধক। উদাহরণ স্বরূপ বলা যায়, চর্যাগীতিসমূহ বৌদ্ধ ধর্মশাস্ত্র ‘দীর্ঘনিকায়’- এর ’অমরা বিক্ষেপিত’- এর নিয়মানুযায়ী দ্ব্যর্থক ভাষায় রচিত। দ্বিতীয়তঃ চর্যাপদের রচনানীতি লৌকিক; কিন্তু বিষয়বস্তু ও মূলভাবনা বৌদ্ধ ’ধর্ম্মপদে’ প্রোথিত । ’ধন্মপদে’ বলা হয়েছে–“বনং ছিন্দথ মা…

মহাযান বৌদ্ধধর্মে বোধিসত্ত্ব জীবন ও সাত্ত্বিক বৈশিষ্ট্য

মহাযান বৌদ্ধধর্মে বোধিসত্ত্ব জীবন ও সাত্ত্বিক বৈশিষ্ট্য মহাযান ধর্মদর্শন বৌদ্ধধর্মের ইতিহাসে একটি গুরুত্বপূর্ণ বিষয়। বৌদ্ধধর্মের উৎকর্ষের কালপর্বে মহাযান বৌদ্ধধর্মের উদ্ভব। মহাযান অত্যন্ত বৃহৎ; দর্শনে তারা শূন্যবাদী ও আদর্শবাদী, নীতিতে করুণাবাদী ও উদারপন্থী। মহাযানীদের লক্ষে সর্বসাধারণের মুক্তি। মহাযান মতাদর্শ মতে, বোধিসত্ত্ব জীবন মুক্তির সোপান। বোধিসত্ত্বের মহত্বকে মহাযান ধর্মদর্শনে অত্যন্ত গুরুত্বের সাথে বিবেচনা করা হয়। বোধিসত্ত্ব জীবন বুদ্ধের বুদ্ধত্ব লাভের পূর্ববর্তী বিভিন্ন ধাপ; বুদ্ধত্ব লাভই পরিপূর্ণতা। এ জীবন পরিগ্রহণের মধ্য দিয়ে বোধিজ্ঞান…

মৈত্রী শান্তির শ্রেষ্ঠ অস্ত্র

মৈত্রী শান্তির শ্রেষ্ঠ অস্ত্র ইলা মুৎসুদ্দী পৃথিবীতে যত শক্তি আসুক; যেটা সভ্যতাকে ধ্বংস করতে পারে; আসুন আমরা সবাই মিলে ”মৈত্রী” অভ্যাসটা করে সুন্দর, সুক্ষ্ম, একটা শক্তিশালী তরঙ্গ দিয়ে ঐ জগৎ সভ্যতার ক্ষতিকর শক্তিকে প্রতিহত করি। এভাবে অশুভ শক্তি ধ্বংস হলে সুখের পৃথিবী সৃষ্ঠি হতে পারে; স্বর্গীয়ময় হতে পারে। বুদ্ধ বলেছেন - ”প্রত্যেক জীব চেষ্টা করলে বুদ্ধ হতে পারবে।” বুদ্ধের মতো হতে আমরাও পারব বলে বুদ্ধ বলেছেন। সুতরাং এই জীবনে বুদ্ধ…

অপূর্ণ অতৃপ্ত তৃষ্ণাবশ

অপূর্ণ অতৃপ্ত তৃষ্ণাবশ কামরাগ হতেই আশ্রবের সৃষ্টি;ক্লেশে (তা) বৃদ্ধিপ্রাপ্ত হয়;(যিনি) আসক্ত কিংবা কামরাগে প্রবৃত্ত নন,(সেই বিজ্ঞব্যক্তি) বিমুক্ত এবং মূর্খদের পেছনে ফেলে                      (সর্বদা সম্মুখে অগ্রসর হন)।       ---- ক্রোধবর্গ আমরা মোহের বশে, অজ্ঞানতার অন্ধকারে ডুবে আছি আর লৌকিক জগতকে অতীব ধ্রুবসত্য মনে করি। আমাদের চারপাশের লোভ, দ্বেষ, মোহ, হিংসা, অহংকার এককথায় অবিদ্যার অন্ধকার আমাদের আকন্ঠ নিমজ্জিত করে রেখেছে। আমরা যারা সংসারে আবদ্ধ হয়ে আছি তাদের তৃষ্ণার শেষ নেই। যত পাই তত চাই।…

ধর্মচক্র এবং অশোকচক্র কী এক?

ধর্মচক্র এবং অশোকচক্র কী এক? ধর্মচক্র বা ন্যায়ের চাকা : বোধিলাভের পথে বুদ্ধের শিক্ষার প্রতীক। মৌর্য সম্রাট অশোকের (খ্রিস্টপূর্ব ৩য় শতক) সময় থেকে প্রতীকটি প্রচলিত হয়ে আসছে। রথের চাকার আটটি কীলক বা স্পাইক বুদ্ধ-নির্দেশত আটটি পথ বা আর্য অষ্টাঙ্গিক মার্গের (সম্যক দৃষ্টি, সম্যক সংকল্প, সম্যক আজীব, সম্যক বাক্য, সম্যক কর্ম, সম্যক ব্যায়াম, সম্যক স্মৃতি ও সম্যক সমাধি) প্রতীক। * Dharmachakra or "wheel of law". The eight spokes of the wheel…

পারমী পূরণ

পারমী পূরণ মনুষ্য জীবন লাভ যেমন অতীব দূর্লভ তেমনি দূর্লভ সদ্ধর্ম শ্রবণের সুযোগ পাওয়া কিংবা কুশল কর্ম সম্পাদনের সুযোগ পাওয়া। যে কোন কর্ম সম্পাদন করতে চেতনার প্রয়োজন ঘটে আর জন্ম জন্মান্তরের কুশল কর্ম সম্পাদনের ধর্মচেতনা গুলো একত্রিত হয়ে পারমী বীজে পরিণত হতে থাকে। একজন ব্যক্তি প্রতিনিয়ত যে ধরণের কর্ম সম্পাদন করে সেই ধরণের কর্মের প্রতিই মানুষের সংষ্কার উৎপন্ন হতে থাকে। সেটা কুশল হলে কুশল আর অকুশল হলে অকুশল। যেহেতু আমরা…

অপূর্ণ অতৃপ্ত তৃষ্ণাবশ

অপূর্ণ অতৃপ্ত তৃষ্ণাবশ    কামরাগ হতেই আশ্রবের সৃষ্টি;ক্লেশে (তা) বৃদ্ধিপ্রাপ্ত হয়;(যিনি) আসক্ত কিংবা কামরাগে প্রবৃত্ত নন,(সেই বিজ্ঞব্যক্তি) বিমুক্ত এবং মূর্খদের পেছনে ফেলে                      (সর্বদা সম্মুখে অগ্রসর হন)।       ---- ক্রোধবর্গ আমরা মোহের বশে, অজ্ঞানতার অন্ধকারে ডুবে আছি আর লৌকিক জগতকে অতীব ধ্র“বসত্য মনে করি। আমাদের চারপাশের লোভ, দ্বেষ, মোহ, হিংসা, অহংকার এককথায় অবিদ্যার অন্ধকার আমাদের আকন্ঠ নিমজ্জিত করে রেখেছে। আমরা যারা সংসারে আবদ্ধ হয়ে আছি তাদের তৃষ্ণার শেষ নেই। যত পাই তত…

জীবন-পথে

জীবন-পথে “সবার উপরে মানুষ সত্য, তাহার উপরে নাই।”কি উপায়ে দেব-দুর্লভ মানব-জীবনকে ক্রমে ক্রমে উন্নত, উন্নততর ও উন্নততম করিয়া পরম শান্তি লাভ করা যায়, ভগবান বুদ্ধ-দেশিত কিছু উপায় সকলের মঙ্গলের জন্য এইখানে প্রকাশ করা হইয়াছে।এক সময় ভগবান ভিক্ষু, ভিক্ষুণী, উপাসক ও উপাসিকা এই চতুর্বিধ শ্রোতাকে উপলক্ষ্য করিয়া বলিয়াছেন-“আজ তোমাদিগকে আচরণীয় ও অনাচরণীয় ধর্মপরম্পরা উপদেশ দিব, তাহা সবাই মনযোগ সহকারে শ্রবণ কর। ১। কায়-সমাচার ২। বাক্-সমাচার। ৩। মনোসমাচার। ৪। চিত্তোৎপাদ। ৫। সংজ্ঞা-প্রতিলাভ।…
Nirvana Peace Foundation

নির্বাণা কার্যক্রম
Image
নির্বাণা পিস ফাউন্ডেশনের উদ্যোগে শিশু কিশোরদের চিত্রাংকন প্রতিযোগিতা সম্পন্ন নির্বাণা পিস ফাউন্ডেশনের উদ্যোগে শিশু কিশোরদের চিত্রাংকন প্রতিযোগিতা সম্পন্নশিশু কিশোরদের… ( বিস্তারিত )
Image
নির্বাণা পিস ফাউন্ডেশনের ব্যতিক্রমী আয়োজন নির্বাণা পিস ফাউন্ডেশনের ব্যতিক্রমী আয়োজন শিশু কিশোরদের মধ্যে ধর্মীয় চেতনা… ( বিস্তারিত )
Image
পূর্ব আধারমানিক মানিক বিহারে বৌদ্ধ ধর্মীয় কল্যান ট্রাষ্টের আর্থিক অনুদানের চেক প্রদান পূর্ব আধারমানিক মানিক বিহারে বৌদ্ধ ধর্মীয় কল্যান ট্রাষ্টের আর্থিক অনুদানের… ( বিস্তারিত )
আরও
সংবাদ সমীক্ষা
Image
সাহিত্যিক সাংবাদিক বিমলেন্দু বড়ুয়ার দশম মৃত্যুবার্ষিকী ২২ জানুয়ারি সাহিত্যিক সাংবাদিক বিমলেন্দু বড়ুয়ার দশম মৃত্যুবার্ষিকী ২২… ( বিস্তারিত )
আরও