২৫৬১ বুদ্ধাব্দ ৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৪ বঙ্গাব্দ মঙ্গলবার, ২১ নভেম্বর ২০১৭ইংরেজী
Sunny

28°C

Chittagong

Sunny

Humidity: 61%

Wind: 22.53 km/h

  • 21 Nov 2017

    Sunny 29°C 19°C

  • 22 Nov 2017

    Partly Cloudy 27°C 17°C

শিল্প ও সংস্কৃতি

স্বনামধন্য গবেষক অধ্যাপক ডঃ বিমান চন্দ্র বড়ুয়া'র নতুন বই 'বাঙালি বৌদ্ধ লোকসংস্কৃতি'

স্বনামধন্য গবেষক অধ্যাপক ডঃ বিমান চন্দ্র বড়ুয়া'র নতুন বই 'বাঙালি বৌদ্ধ লোকসংস্কৃতি'

স্বনামধন্য সংগীত শিল্পী ত্রিদিব বড়ুয়া রানা : নান্দনিক স্বপ্নের সুরময়তা

স্বনামধন্য সংগীত শিল্পী ত্রিদিব বড়ুয়া রানা : নান্দনিক স্বপ্নের সুরময়তা সাক্ষাতকার গ্রহণে : মিথিলা চৌধুরী চট্টগ্রামে যে ক’জন শিল্পী স্বীয় সাধনা ও চর্চার মাধ্যমে নিজেকে প্রতিষ্ঠিত করেছেন মঞ্চ, বেতার ও টেলিভিশনের জনপ্রিয় কণ্ঠশিল্পী ত্রিদিব বড়ুয়া রানা তাদের মধ্যে অন্যতম একজন। শৈশবে আর্থিক ও সামাজিক প্রতিকূলতা সত্বেও তিনি এগিয়ে গেছেন স্বীয় প্রতিভায়। আলোকিত করেছেন চট্টগ্রামের সংস্কৃতি অংগন। মঞ্চ, বেতার ও টেলিভিশনে যারা শিল্পীর গান শুনেছেন তারা তার কন্ঠের মহিমায় সকলে বিমোহিত…

বাংলা সাহিত্য ও সাংবাদিকতায় ও সব্যসাচী ঋদ্ধিমান কৃতিপুরুষ বিমলেন্দু বড়ুয়া স্মারকগ্রন্থের প্রকাশনা অনুষ্ঠান ১৮ মার্চ

বাংলা সাহিত্য ও সাংবাদিকতায় ও সব্যসাচী ঋদ্ধিমান কৃতিপুরুষ বিমলেন্দু বড়ুয়া স্মারকগ্রন্থের প্রকাশনা অনুষ্ঠান ১৮ মার্চ প্রথিতযশা সাংবাদিক, বরেণ্য সাহিত্যিক, খ্যাতিমান কবি, বহুমুখী কর্মপ্রতিভার অধিকারী সব্যসাচী লেখক, ঋদ্ধিমান পুণ্যপুরুষ, মননশীল সমাজ বিনির্মাণের দৃপ্তমান সাংগঠনিক ব্যক্তিত্ব বিমলেন্দু বড়ুয়ার জীবনকীর্তি নিয়ে রচিত ‘বিমলেন্দু বড়ুয়া স্মারকগ্রন্থ’ প্রকাশনা উৎসব আগামী ১৮ মার্চ ২০১৭ ইং, শনিবার, বিকেল চারটার সাংবাদিক বিমলেন্দু বড়ুয়া মেমোরিয়াল ফাউন্ডেশন-এর উদ্যোগে নন্দনকানন বৌদ্ধ মন্দির সড়কে ফুলকিস্থ এ কে খান স্মৃতি মিলনায়তনে অনুষ্ঠিত হবে।…

রুমি চৌধুরীর প্রথম কাব্যগ্রন্থ 'নীল দিগন্তের ছায়াসঙ্গী'র প্রকাশনা অনুষ্ঠান ২৭শে জানুয়ারি

রুমি চৌধুরীর প্রথম কাব্যগ্রন্থ 'নীল দিগন্তের ছায়াসঙ্গী'র প্রকাশনা অনুষ্ঠান ২৭শে জানুয়ারি চট্রগ্রামের সাহিত্য সংগঠন ‘বাংলাদেশ সাহিত্য চচা' ও বিকাশ কেন্দ্রের উদ্যোগে আগামী ২৭শে জানুয়ারি শুক্রবার বিকেল ৩টায় চট্রগ্রাম প্রেস ক্লাবের আবদুল খালেক মিলনায়তনে উদীয়মান কবি রুমি চৌধুরীর প্রথম কাব্যগ্রন্থ 'নীল দিগন্তের ছায়াসঙ্গী'র প্রকাশনা উৎসব ও মোড়ক উন্মোচন অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়েছে। অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসাবে উপস্থিত থাকবেন বরেণ্য সাহিত্যিক, শহীদ জায়া বেগম মুসতারী শফি। উদ্বোধক হিসেবে উপস্থিত থাকবেন রম্য লেখক…

অভিধর্ম পিটকের অনূদিত গ্রন্থ 'কথাবত্থু' -এর মোড়ক উন্মোচন ৩০ ডিসেম্বর শুক্রবার

অভিধর্ম পিটকের অনূদিত গ্রন্থ 'কথাবত্থু' -এর মোড়ক উন্মোচন ৩০ ডিসেম্বর শুক্রবার অভিধর্ম পিটকের পঞ্চম গ্রন্থ এবং ত্রিপিটকের অনূদিত শেষ গ্রন্থ কথাবত্থু গ্রন্থের মোড়ক উন্মোচন ৩০ ডিসেম্বর শুক্রবার। বাংলা ভাষাভাষী বৌদ্ধদের জন্য এক অনন্য দিন। ঠিক কবে থেকে বাংলায় ত্রিপিটক অনুবাদ করা শুরু হয়েছিল তার দিনক্ষণ সুনির্দিষ্ট করে বলা সম্ভব নয়। তবে যাঁর মাধ্যমেই শুরু হোক না কেন সবারই ঐকান্তিক প্রচেষ্টা ছিল পূর্ণাঙ্গ ত্রিপিটক একদিন বাংলায় অনুবাদ হবে। পূজ্য প্রজ্ঞালোক মহাস্থবির,…

গ্রন্থ পরিচিতি : অধ্যক্ষ শিমুল বড়ুয়ার শ্রমনিষ্ঠা ও মেধার ফসল ‘রবীন্দ্রজীবনে ও সাহিত্যে চট্টগ্রাম’

গ্রন্থ পরিচিতি : অধ্যক্ষ শিমুল বড়ুয়ার শ্রমনিষ্ঠা ও মেধার ফসল ‘রবীন্দ্রজীবনে ও সাহিত্যে চট্টগ্রাম’ লেখক, গবেষক, শিক্ষা প্রশাসক শিমুল বড়ুয়ার ”রবীন্দ্রজীবনে ও সাহিত্যে চট্টগ্রাম” শীর্ষক গবেষণাকর্ম বইটি পড়ে ফ্রান্সিস বেকনের স্মরনীয় উক্তি -‘কিছু বই আছে কেবল চেখে দেখার জন্য, কিছু বই আছে গলাধঃকরনের জন্য আর কিছু বই আছে একেবারে চিবিয়ে খেয়ে ফেলবার জন্য’ আমাদের কাছে দিনের আলোর মত স্বচ্ছ হয়ে উঠে। স্বনামখ্যাত প্রগতিশীল মুক্তমনা লেখক, সাহিত্যিক অধ্যক্ষ শিমুল বড়ুয়া বই পিপাসু…

এ বছর চর্যাপদ প্রকাশের শতবর্ষ ।। চর্যাপদ : ফিরে তাকানো

এ বছর চর্যাপদ প্রকাশের শতবর্ষ ।। চর্যাপদ : ফিরে তাকানো বাংলাদেশে আধুনিক জ্ঞানচর্চার শুরু হয়েছিল ঔপনিবেশিক শাসনের অভিঘাতে। পলাশীর যুদ্ধের তিন দশকের মধ্যে কলকাতায় রয়েল এশিয়াটিক সোসাইটি অব বেঙ্গল (১৭৮৪)-কে ঘিরে জ্ঞানচর্চার যে বৃত্ত গড়ে উঠেছিল, তার প্রধান উদ্দেশ্য ছিল ইউরোপীয়দের এশিয়াকে জানার চেষ্টা। বাঙালি বিদ্বজ্জন তাতে মুগ্ধ হয়ে যোগ দিয়েছিল। ইংরেজি সাহিত্যের আদলে বাংলা সাহিত্যচর্চা ফোর্ট উইলিয়াম গদ্যের সূচনা করেছিল। পদ্যেও পালাবদলের ধ্বনি শোনা গিয়েছিল, যার পরিণতি মাইকের মধুসূদন দত্তের…

‘রবীন্দ্রজীবনে ও সাহিত্যে চট্টগ্রাম’ গ্রন্থের প্রকাশনা অনুষ্ঠানে চবি উপাচার্য ।। শিমুল বড়ুয়ার মননশীল লেখনীতে সাহিত্য জগৎ আরো সমৃদ্ধ হবে

‘রবীন্দ্রজীবনে ও সাহিত্যে চট্টগ্রাম’ গ্রন্থের প্রকাশনা অনুষ্ঠানে চবি উপাচার্য ।। শিমুল বড়ুয়ার মননশীল লেখনীতে সাহিত্য জগৎ আরো সমৃদ্ধ হবে অধ্যক্ষ শিমুল বড়ুয়া তাঁর মননশীল লেখনীর মাধ্যমে বাংলা সাহিত্য জগতকে সমৃদ্ধ করছেন। ১৯০৫ সালে বঙ্গভঙ্গ হয়। ১৯০৭ সালে রবীন্দ্রনাথ চট্টগ্রামবাসীর আমন্ত্রণে চট্টগ্রাম আসেন। দুইদিন তিনি চট্টগ্রামে অবস্থান করেন। সেই সময়কার চট্টগ্রামবাসীর ধ্যান ধারণা, চিন্তাচেতনাকে ধারণ করেছেন কবিগুরু রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর। সেই সব দিয়ে তিনি তাঁর সাহিত্যাঙ্গনকে সমৃদ্ধ করেছেন।গতকাল ফুলকি এ কে খান…

ভাগ্যধন বড়ুয়া-এর গুচ্ছ কবিতা

ভাগ্যধন বড়ুয়া-এর গুচ্ছ কবিতা নদীর নিজস্ব ঘ্রাণ মাতামুহুরীর কথাই বলছি;যার একান্নবর্তী সংসার ভরে আছে জল, জাল, মাতাল তরঙ্গ আর প্রবহমাণ করতালি।…রাত যখন ক্রমশ আঁধার হয়ে আসে তখন অস্পষ্ট স্বর নিরবতায় মাদক ঢালে আর ঢুলুঢুলু চোখে চারদিকের আয়োজন দেখে; ভয় নাকি পরাজয়!… বেদনা না প্রণোদনা! কারা সঙ্গ দিতে আসে রাতে নদীর বুকে? তারা, সংসার বৈরাগী, ঘর ভাঙ্গা মানুষ নাকি আত্মহন্তারক? যার যার মতো সময়ের বিন্যাসে আসে তারা, জলতরঙ্গে ভাসে; কাঁদে বা…

বাংলাদেশে বৌদ্ধ ঐতিহ্যের সুলুক সন্ধান

বাংলাদেশে বৌদ্ধ ঐতিহ্যের সুলুক সন্ধান বাংলাদেশে বৌদ্ধধর্মের প্রথম প্রবেশ ঘটে খ্রিষ্টপূর্ব ৩০০ অব্দে। এ সময় মৌর্য সম্রাট মহামতি অশোক উত্তর বাংলা দখল করে একটি প্রদেশ বা ভুক্তিতে পরিণত করেন। এই পুণ্ড্রবর্ধন ভুক্তির রাজধানী ছিল পুণ্ড্রনগর। আজকের মহাস্থানগড়। এখানে প্রত্নতাত্ত্বিক উৎখননের মাধ্যমে সে যুগের বৌদ্ধ নিদর্শন পাওয়া গেছে। বাংলাদেশে বৌদ্ধধর্ম প্রবলভাবে বিকাশ লাভ করে খ্রিষ্টীয় আট শতক থেকে। এ সময় বাংলা দক্ষিণ-পূর্ব অংশ ছাড়া বাকি অঞ্চল পাল রাজ্যের অন্তর্ভুক্ত হয়। পাল…

সুজন বড়ুয়া শিশুসাহিত্যে বাংলা একাডেমী সাহিত্য পুরস্কার লাভ

সুজন বড়ুয়া শিশুসাহিত্যে বাংলা একাডেমী সাহিত্য পুরস্কার লাভ বাংলা একাডেমী সাহিত্য পুরস্কার ২০১৫ সাল ঘোষণা করা হয়েছে। শিশুসাহিত্যে নিবেদিত প্রাণ সুজন বড়ুয়া শিশুসাহিত্যে অবদানের স্বীকৃতি স্বরূপ বাংলা একাডেমী পুরস্কার’১৫-এ ভূষিত করা হয়েছে। এ বছর দেশের বিভিন্ন ক্ষেত্রে অবদান রাখা ১১ জন বিশিষ্ট কবি, লেখক, গবেষক ও শিক্ষাবিদ এ পুরস্কার পেয়েছেন। বৃহস্পতিবার একাডেমীর সভাকক্ষে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে পুরস্কারপ্রাপ্তদের নাম ঘোষণা করেন বাংলা একাডেমীর মহাপরিচালক শামসুজ্জামান খান৷ এবারের পুরস্কারপ্রাপ্তরা হচ্ছেন কবিতায় আলতাফ…

বিমলেন্দু বড়ুয়া : আমার প্রাণপ্রিয় বাবা

বিমলেন্দু বড়ুয়া : আমার প্রাণপ্রিয় বাবা আমি ভোরের স্বপ্নে দেখেছি তোমারে... বৃষ্টিস্নাত স্নিগ্ধ সকাল। সবদিকে সুনসান নীরবতা। শান্তির নির্মল পরশ বয়ে যাচ্ছে যেনো চারিদিকে। ঘাসে জমে থাকা বৃষ্টির শুভ্র কণা মনে হচ্ছে এক একটি শিশির বিন্দু। ঝাউবনের সারি সারি বৃক্ষরাজির শাখা রাস্তার দু’ধারে নূয়ে আছে। বৃষ্টির জল গড়িয়ে পড়ছে গাছের শাখা বেয়ে। রাসত্মার বিশাল নক্‌শা করা ফুটপাত ভেজাভেজা। আমরা দু’জন হাঁটছি। আমার বাম হাত বাবার ডান করতলে লুকিয়ে রেখে ধরাধরি…

এক খন্ড সোনালী স্মৃতি : বিমলেন্দু বড়ুয়া

এক খন্ড সোনালী স্মৃতি : বিমলেন্দু বড়ুয়া স্কুলের নোটিশ বোর্ডের সামনে জটলা। ছাত্রদের হুড়াহুড়ি। বার্ষিক পরীক্ষার ফলাফল লাগিয়ে দিয়ে দপ্তরী আর কেরানী বোর্ডের ঢাকনিতে ছোট্ট তালা আটকে দিলেন। ঢাকনির উপর তারের জাল। ফাঁক দিয়ে সব দেখা যাচ্ছে। সুন্দর হাতের লেখা। ইংরেজীতে লেখা উত্তীর্ণ ছাত্রদের নাম আর রোল নম্বর। যেন ঝকঝক করছে। যারা পাশ করেছে তাদের চোখে-মুখে আনন্দের উদ্ভাস। আর ফেল যারা মেরেছে তারা নীরবে নতমস্তকে আড়ালে চলে যাচ্ছে। এই আনন্দ-বেদনার পরিবেশে…

এক গুচ্ছ কবিতা : রুমি চৌধুরী

এক গুচ্ছ কবিতা : রুমি চৌধুরী নির্জনতার সুখ নির্জনতা আমার বড্ড ভালো লাগেকারণ এই নির্জনতায় এলেইতোমায় আরো বেশী কাছে পাই।তোমার হাতের স্পর্শ পাইগায়ের গন্ধ পাইআর তোমার চুলের ওই মিষ্টি সুঘ্রাণেআমি বড় বেশী বিভোর হয়ে যাই।নির্জনতা আমাকে বড্ড কাছে টানেসবুজ প্রকৃতি আমাকে আকুল করে।মাতাল হাওয়ায় কৃষ্ণচূড়ার বনেআটকে থাকে চোখ।কাশফুলেরা হাতছানি দিয়ে ডাকেকোন এক শিউলি ফোঁটা ভোরে।নির্জনতায় আমি পথ হারাইঅনেকটা ইচ্ছে করেই হারাই।কারণ কল্পলোকের অসীম সুখের মতনির্জনতার সুখটাও যেআমি গভীরভাবে পেতে চাই।হঠাৎ সব…

রুমি চৌধুরীর কবিতায় কথকথা

রুমি চৌধুরীর কবিতায় কথকথা জীবন কি ? জীবন সেতো উজান স্রোতে বয়ে চলা নদী, সাগর পানে আনমনে সে ছুটে নিরবধি।জীবন সেতো সুনীল আকাশ , একচিলতে আলো,এই বুঝি তার কষ্ট ভীষণ, এই বুঝি তার ভালো।জীবন সেতো পিছলে পড়া পদ্ম পাতার পানি,নিরাশার অবাধ জলে আশার হাতছানি।জীবন সেতো নীল জোছনা, আকাশ ভরা তারা,আবার কখনো অমাবস্যায় হয় দিশেহারা।জীবন সেতো কষ্টে থেকেও মুখে হাসির দোলা,শত দুঃখেও কুশল জবাব 'ভালো আছি' বলা।জীবন সেতো লক্ষ কোটি তারার…